মঙ্গলবার, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১০:৪৯ অপরাহ্ন
শিরোনাম
বানারীপাড়ায় আধাঁ কেজি গাঁজা সহ দুই মাদক কারবারী ডিবির হাতে আটক তালতলীতে তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রের শ্রমিকদের বিক্ষোভ বানারীপাড়ায় প্রধানমন্ত্রীর ৭৫তম জন্মদিন উপলক্ষে যুবলীগের বৃক্ষ রোপন বেনাপোল বন্দরে মিথ্যা ঘোষণার এক কোটি ২০ লাখ টাকার কেমিক্যাল আটক বানারীপাড়ার সাংবাদিক এস মিজানুল ইসলাম পেল স্মৃতি পদক আমতলী ও তালতলীতে সারের জন্য হাহাকার” কৃষক হন্য হয়ে খুঁজেও সার পাচ্ছে না বানারীপাড়ায় প্লানবিহীন ভবন অপসারনের দাবীতে ব্যাবসায়ীদের মানববন্ধন বরগুনায় ভুল চিকিৎসায় শিশুর মৃত্যু” ডাক্তার কারাগারে বরগুনার আমতলীতে সাইকেল পেয়েছেন ৬৪ জন গ্রাম পুলিশ বরগুনার পাথরঘাটায় বিস্কুটের কার্টন থেকে সদ্যজাত শিশু উদ্ধার

বানারীপাড়ায় চিকিৎসকের ভুলে প্রসূতির মৃত্যু তারাহুরো করে পাঠিয়ে দেয় লাশ

অনলাইন ডেস্ক / ৬৪ শেয়ার
প্রকাশিত : রবিবার, ১২ সেপ্টেম্বর, ২০২১

মোঘল সুমন শাফকাত ,বানারীপাড়াঃ
বরিশালের বানারীপাড়ায় চিকিৎসকের দায়িত্ব অবহেলায় অপারেশন টেবিলে প্রসূতি মায়ের মৃত্যু হয়েছে এমনটা অভিযোগ করেছেন প্রসূতির স্বামী জসিম হাওলাদার। উপজেলার চাখার ইউনিয়নের বড় ভৈৎসর গ্রামের জসিম হাওলাদার তার গর্ভবতী স্ত্রী লাবলী বেগমকে নিয়ে গত বৃহস্পতিবার বানারীপাড়ায় স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে আসেন। এ সময় পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা কবির হাসান রোগীকে দেখে নির্ধারিত ডায়গনস্টিক সেন্টারে বিভিন্ন ধরনের টেস্ট দিয়ে ভর্তি হতে বলেন। পরদিন ১১ সেপ্টেম্বর সকালে এক নার্স এসে বলেন আজ আপনার সিজার করা হবে। ভ্যানচালক জসিমকে ওষুধ নিয়ে আসতে বললে জসিম ওষুধ আনতে যায়। এই সময় লাবলী জসিমকে খুজতে দোতলা থেকে হেটে নিচে আসে। পুরোপুরি সুস্থ অবস্থায় লাবলী বেগমকে অপারেশন থিয়েটারে নেয়া হয়। অপারেশন শেষে এক সেবিকা সদ্যজাত সন্তানকে দাদীর কোলে দিয়ে বলে মায়ের অবস্থা ভাল না। ৩/৪ মিনিট পরে জানানো হয় প্রসূতি ওই নারী মারা গেছেন। এমনটাই জানায় লাবলীর স্বামী জসিম। তখনই তারাহুরো করে কোন ধরনের ছাড়পত্র না দিয়ে সরকারী এম্বুলেন্সে করে লাশ পাঠিয়ে দেয়া হয় চাখারে। জসিমের মা জানায় তার সুস্থ পুত্রবধূকে ভুল চিকিৎসা করে ডাঃ কবির হাসান মেরে ফেলেছে। মৃত লাবলীর ভাই মোঃ বাবলু বলেন তাদেরকে এক প্রকার জোর করে হাসপাতাল থেকে পাঠিয়ে দেয়া হয়েছে। ইউপি সদস্য সোহেল বলেন ডাক্তারদের দায়িত্ব অবহেলায় যদি প্রসূতি নারীর মৃত্যুহয়ে থাকে তাহলে এর সঠিক বিচারের জন্য যতোদূর যেতে হয় আমি যাব। আর এই লাশ নিয়ে কেহ অর্থ বানিজ্য করবে তা আমি হতে দিব না। এ বিষয়ে উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডাক্তার এস এম কবির হাসান বলেন, প্রসূতি লাভলী বেগমকে আরো এক মাস পূর্বে হাসপাতালে ভর্তির জন্য বলা হয়েছিল কিন্তু ভর্তি করায়নি। তবে শনিবার লাভলীর সফল অপারেশনের পর রক্তচাপ বেড়ে যায় এবং হার্ট এ্যাটাক করে। আমাদের সকল চেস্টা ব্যর্থ হয় এবং তার মৃত্যু হয়। রোববার সকাল ৯ টায় মৃতের লাশ দাফন করা হয়েছে। এ বিষয়ে বরিশাল সিভিল সার্জন ডাক্তার মোঃ মনোয়ার হোসেন জানান, যদি সংশ্লিষ্ট ডাক্তারের অবহেলায় প্রসূতি মারা যায় এর অভিযোগ পেলে অবশ্যই তদন্ত পূর্বক আইনি ব্যবস্থা নেয়া হবে। এদিকে মা হারা সদ্যজাত সন্তান নিয়ে বিপাকে পরেছেন দিন মজুর পিতা।

 

Facebook Comments Box


এ সম্পর্কিত আরো সংবাদ
Developed by: Agragamihost.Com